যৌন সুবিধা না দিলে মেলেনা ত্রাণ!

যুদ্ধে আক্রান্ত মানুষের ক্ষুধাকে পুঁজি করে যৌন নিপীড়নের অস্ত্র বানানো হচ্ছে সিরিয়ায়।
আহ!

আফসোস সিরিয়ার মা-বোনদের জন্য…..
কিছুই করতে পারছি না তোমাদের জন্য….
শুধু দোয়াই করছি…
দুর্বল ঈমানদার হিসেবে তোমাদের জন্য…
তোমরা আমাকে ক্ষমা করো হে সুমাইয়া রাঃ এর উত্তরসূরীরা…….
তোমাদের কাছে আমি অধম ক্ষমাপ্রার্থী….
আর শত ধিক্কার জানাই মানুষরুপী বেঈমানদের দালালদের..
যারা আমার মুসলিম মা-বোন-শিশু-বৃদ্ধ বণিতাদের হত্যায় মেতে উঠেছে….
নামধারী মুসলিম রাষ্ট্র ইরানী শিয়াদের প্রতি শত ধিক!
রাজতন্ত্রের গোলাম ফতোয়াবাজ সন্ত্রাসদের প্রতি শত ধিক্কার…….
আজ কোথায় জাতিসংঘ?
কোথায় ওআইসি?
কোথায় আরবলীগ….
সবাই বুঝি আজ নীরব?

শাম দেশ সিরিয়া হচ্ছে পুরো পৃথিবীর প্রাণ ভোমরা, সিরিয়ার অশান্ত মানিই পুরো পৃথিবীর অশান্তি, প্রতি মহূর্তে মনে পড়ছে, বিশ্ব নবী রাসূল (সাঃ) এর নিচের ভবিষ্যবাণীটি…

ইবনুল মুসাইয়াব (রাঃ) বর্ণনা করেছেন।

তিনি বলেন, রাসূল (সাঃ) বলেছেন:
শাম দেশে সিরিয়ার ব্যাপক ফেতনা দেখা দিবে, যখন উক্ত দেশের কোন প্রান্তের ফেতনা একটু শান্ত হবে তখনই অন্য প্রান্ত উত্তপ্ত হয়ে উঠবে।”(( কিতাবুল আল-ফিতান: ৬৭৩.))
সাওবান (রাঃ) হতে বর্নিত।

তিনি বলেন, রাসূলুল্লাহ (সাঃ) বলেছেন:
খাদ্য গ্রহণকারীরা যেভাবে খাবারের পাত্রের চতুর্দিকে একত্র হয়, অচিরেই বিজাতিরা তোমাদের বিরুদ্ধে সেভাবে একত্রিত হবে। এক ব্যক্তি বললো, সেদিন আমাদের সংখ্যা কম হওয়ার কারণে কি এরুপ হবে? তিনি বললেন: তোমরা বরং সেদিন সংখ্যাগরিষ্ঠ হবে; কিন্তু তোমরা হবে প্লাবনের স্রোতে ভেসে যাওয়া আবর্জনার মত। আর আল্লহ্ তোমাদের শক্রদের অন্তর হতে তোমাদের পক্ষ হতে আতষ্ক দূর করে দিবেন, তিনি তোমাদের অন্তরে ভীরুতা ভরে দিবেন। এক ব্যক্তি বললো, হে আল্লাহর রাসূল! ‘আল-ওয়াহন কি? তিনি বললেন: দুনিয়ার মোহ এবং মৃত্যুকে অপছন্দ করা।”(( সুনানে আবু দাউদ: হাদীস নং- ৪২৯৭.))

আবু দারদা (রাঃ) বর্ণনা করেছেন।

রাসূলুল্লাহ (সাঃ) বলেন:
যুদ্ধের দিন মুসলিমদের শিবির স্হাপন করা হবে “গূতা” নামক শহরে, যা #সিরিয়ার সর্বোত্তম শহর দামিশকের পাশে অবস্হিত।”(( সুনানে আবু দাউদ: হাদীস নং- ৪২৯৮.))

আজ_আমরা_সেই_পরিস্হিতির_মুখোমুখি।”
ইয়া মহান আল্লাহ্! রাসিয়া সহ মালাউন আসাদ শয়তান সহকারে পৃথিবীর সকল জালেমদের কে ধ্বংস করে দিন এবং মজলুম সিরিয়াবাসীকে হেফাজত করুন..~হে পরাক্রমশালী আল্লাহ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *