কারখানার ড্রাম সারতে গিয়ে শ্রমিকের মৃত্যু

ঢাকার তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল এর কোহিনুর কেমিক্যালের (তিব্বত) কারখানায় ভর্তি ড্রাম সরানোর সময় শফিকুল ইসলাম (৩৫) পড়ে গিয়ে নিহত হয়েছে।নিহত শ্রমিক শফিকুল ঐ কারখানাতে অনেক দিন ধরে কাজ করতেন।

২৮ অক্টোবর বৃহস্পতিবার দুপুর ১টার দিকে কোহিনুর কেমিক্যালের (তিব্বত) কারখানায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। শফিকুল ইসলাম কে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে গুরুতর আহত অবস্থায় নিয়ে আসা হয়। ঢামেক হাসপাতালের কর্মরত চিকিৎসক শফিকুল ইসলাম কে ২ টার দিকে মৃত
ঘোষণা করেন।

কারখানার শ্রমিক আলমগীর হোসেন জানান,
নরসিংদীর জেলার রায়পুরা থানার কাচার কান্দি গ্রামে শফিকুল এর বাড়ি। শফিকুল এর বাবার নাম
রকিব উল্লাহ।শফিকের স্ত্রী ও দুটি সন্তান রয়েছে।

তিনি আরও জানান, আমি আর শফিকুল দুই জনই কোহিনুর কেমিক্যাল কোম্পানিতে কাজ করি।আজ দুপুরে কাজ করার সময় শফিকুল ভরা ড্রাম অসাবধানে সরানোর সময় পড়ে যায়। এসময় ড্রামের সঙ্গে থাকা একটি পাত তার পেটে ঢুকে যায়।শফিকুল গুরুতর আহত হলে তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তারপর চিকিৎসক তাকে মৃত বলে ঘোষণা করে।

ঢামেক হাসপাতালের পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ মো. বাচ্চু মিয়া জানান, ঢামেক হাসপাতালের কর্মরত চিকিৎসক কোহিনুর কেমিক্যালের (তিব্বত) কারখানায় শ্রমিক শফিকুল ইসলাম কে মৃত ঘোষণা করেন।মৃত শফিকুল এর লাশ ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে।

রিপোর্ট২৪বিডি/এম এম

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

BengaliEnglish